লগ ইন
 

Logo

Logo

গ্রাম উন্নয়ন কর্ম (গাক) সম্পর্কে

সংস্থার পটভূমিঃ গ্রাম উন্নয়ন কর্ম (গাক) বিগত ১৯৮৯ সালে বগুড়া জেলাধীন সারিয়াকান্দি উপজেলার ধনতলা গ্রামে সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা নির্বাহী পরিচালক খন্দকার আলমগীর হোসেন এর বলিষ্ঠ নেতৃত্বে কিছু সংখ্যক আত্ননিবেদিত সমাজসেবীর স্বক্রিয় সহযোগিতা ও অংশগ্রহণের মধ্য দিয়ে একটি অরাজনৈতিক, অলাভজনক বেসরকারী স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা হিসেবে প্রতিষ্ঠা লাভ করে। প্রাকৃতিক দুর্যোগ কবলিত চরাঞ্চলের দরিদ্র ও অতিদরিদ্র জনগোষ্ঠীর জীবন ও জীবিকার মানন্নোয়নে শিক্ষাকে পূর্ব শর্ত হিসেবে বিবেচনা করে প্রাথমিক পর্যায়ে সংস্থার সাধারণ পরিষদের সদস্যদের মাসিক চাঁদা ও অনুদানের অর্থায়নে স্কুল থেকে ঝরে পড়া ভাসমান দরিদ্র পরিবারের ৩০ জন ছেলে-মেয়ে নিয়ে একটি উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা কেন্দ্রে শিক্ষা কার্যক্রম শুরু করা হয়। ৩ বছর মেয়াদী শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করার পর উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা কার্যক্রমটি এলাকার জন সাধারণের মাঝে ব্যাপক সাড়া জাগায় এবং অবহেলিত ও সুবিধা বঞ্চিত দরিদ্র পরিবারের প্রাথমিক স্কুল থেকে ঝরে পড়া ছেলে-মেয়েদের এ ধরণের স্কুলে বিনা খরচে লেখাপড়া শেখার জন্য অভিভাবকদের মাঝে ব্যাপক আগ্রহের সৃষ্টি করে এবং জনগণের চাহিদার উপর ভিত্তি করে অত্র এলাকায় কিছু সংখ্যক উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা কেন্দ্র চালু করার লক্ষ্যে সংস্থা বাংলাদেশ সরকার ও ব্র্যাক এর নিকট আর্থিক ও কারিগরী সহায়তার জন্য আবেদন জানায়। পরবর্তীতে ব্র্যাক কর্তৃপক্ষ সরেজমিনে সংস্থার উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শন করেন এবং দুর্গত এলাকা এবং অত্র এলাকায় প্রয়োজনীয় সংখ্যক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান  না থাকার বিষয়টি বিবেচনা করে ৩ বছর মেয়াদী ১০টি উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা কেন্দ্র চালু করার লক্ষ্যে আর্থিক ও কারিগরী সহায়তা প্রদান করেন। এরপর শুরু হয় সংস্থার একের পর এক উন্নয়ন কার্যক্রম। এ পর্যন্ত দেশের ৩৫টি জেলার প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চলে সংস্থার বৃহত্তর শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কৃষি ও প্রানিসম্পদ উন্নয়ন, খাদ্য নিরাপত্তা, পুষ্টি ও ক্ষুদ্রঋণ কার্যক্রমসহ বহুমুখী উন্নয়ন কার্যক্রম বিস্তার লাভ করেছে। সমাজের পশ্চাৎপদ, অবহেলিত ও সুবিধা বঞ্চিত দরিদ্র ও অতিদরিদ্র জনগোষ্ঠীর আর্থ সামাজিক উন্নয়নে সকল প্রকার উন্নয়ন কর্মকান্ড পরিচালিত হচ্ছে। দরিদ্র জনগোষ্ঠীর টেকসই উন্নয়নই সংস্থার মূল লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য।

বর্তমানে সংস্থার কর্ম পরিধি দেশের ৬টি বিভাগের ৩৫টি জেলার ১৮৫টি উপজেলায় ৩১৫টি অফিসের মাধ্যমে ৩৩৫২ জন দক্ষ জনবল দ্বারা প্রায় ৫.০০ লক্ষ পরিবারকে সংঘটিত করে প্রতি বছর প্রায় ২ হাজার কোটি টাকার বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মসূচি ও প্রকল্প পরিচালনা করছে।

সংস্থার নিবন্ধন তথ্যঃ  

ক্রঃনং 

নিবন্ধন তথ্য 

নিবন্ধন নম্বর 

নিবন্ধন তারিখ 

এনজিও বিষয়ক ব্যুরো

১৪৫৯

১৯ ডিসেম্বর ১৯৯৯

সমাজ সেবা অধিদপ্তর

বগুড়া-৪৩৪/৯৩

৯ মার্চ ১৯৯৩

মাইক্রোক্রেডিট রেগুলেটরি অথরিটি

০২৭৬১-০৩১৯৬-০০২৭৩

১৫ জুন ২০০৮

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর

৮৯৩০, ৪২১৫

২৭ জুলাই ২০১৫

দিনাজপুর জেলায় সংস্থার কার্যক্রম সমূহ

এসএমএপি (ঋণ কার্যক্রম)

ক্রঃনং 

জেলার নাম 

শাখার নাম 

উপজেলার নাম 

সদস্য সংখ্যা 

ঋণী সংখ্যা 

মোট ঋণস্থিতি 

এ পর্যন্ত বিতরণ 

দিনাজপুর

শিকদারহাট

দিনাজপুর সদর

৭৪২

৭০৯

১৬০৭০৬৩২

৪৯১৬২০০০

কমলপুর

৬১৯

৫৩১

১১৭৯৬৭৭৭

৩৪৫৮৭০০০

দিনাজপুর সদর

৮৭৮

৭৭৬

১৮০৯৮৫১৪

৫৪৪৪৬০০০

বাঁশেরহাট

৭৭৪

৬৩৬

১৩৪৭০৫৩৭

৩৩৩৬৩০০০

কৃষাণবাজার

৫৭৭

৫১৩

১০৬৪৬৯৫৪

২১৯০৮০০০

আমবাড়ী

পার্বতীপুর

৬৫০

৫৭৬

১০৪৬২৬১৪

২৯৬৭৯০০০

মন্মথপুর

৩৫১

২৯০

৪৭১০২৩৫

৮৫৪১০০০

মোট 

৪৫৯১ 

৪০৩১ 

৮৫২৫৬২৬৩ 

২৩১৬৮৬০০০ 

   

উপানুষ্ঠানিক শিক্ষা কার্যক্রম (গাক শিশু বিকাশ)। 

ক্রঃনং 

জেলার নাম 

উপজেলার নাম 

স্কুল সংখ্যা 

ছাত্র/ছাত্রী সংখ্যা 

শিক্ষক সংখ্যা 

দিনাজপুর

ফুলবাড়ী

৭৭

পার্বতীপুর

১২

৩৩৬

১২

চিরির বন্দর

১১

২৮৬

১১

দিনাজপুর সদর

১৮০

কাহারোল

১১

২৮৯

১১

বীরগঞ্জ

১৯৫

বিরল

১৩

৩৫৯

১৩

বোচাগঞ্জ

৬০

মোট 

 

৬৭ 

১৭৮২ 

৬৭ 

গাক সোলার পাওয়ার প্রোগ্রাম 

ক্রঃনং 

জেলার নাম 

উপজেলার নাম 

ইউনিয়নের নাম 

উপকারভোগীর সংখ্যা 

অফিস সংখ্যা 

দিনাজপুর

বীরগঞ্জ

মরিচা

১৪

পলাশবাড়ী

২৫

 

ছোটগ্রাম

২০

 

কাশিমপুর

 

মোহনপুর

 

জারবাড়ী

 

সাতখামার


 

NGO সমূহ